প্রতিভাবানদের স্বপ্নপূরণে পাশে সুশান্ত সিং রাজপুতের পরিবার,তৈরি হচ্ছে ফাউন্ডেশন…

0
307
Image-Google

১৪ ই জুন ২০২০ এই তারিখটা আমার হয়তো কখনো ভুলতে পারবোনা।একটা অভিশপ্ত দিন ছিলো এটা।দিনটা ছিলো রবিবার, কিন্তু রবিবার এর ছুটির আনন্দ নিমেষে হারিয়ে গেলো যখন জানলাম পর্দার মাহি আর নেই!

‘কাই পো চে’ এর অভিনেতা কোন এক অজ্ঞাত কারণে আত্মঘাতী হয়ে মারা যান। চৌত্রিশ বছরের অল্প জীবনে কী এমন যন্ত্রণা ছিল তার যা তাকে তিলে তিলে শেষ করে দিল? এই প্রশ্নের উত্তর ভক্তদের আজীবন কুড়ে কুড়ে খাবে। তার মৃত্যু হয়তো চিরকাল একটা রহস্য হয়েই থেকে যাবে। কিন্তু এই সবকিছু ছাড়িয়ে যেটা সত্যি হয়ে উঠলো সেটা তার চলে যাওয়া!নাচে গানে দক্ষ, অভিনয়ের পারদর্শী সেই সুশান্ত সিং রাজপুত আজ আর আমাদের মাঝে নেই ‌।

তার মৃত্যুর পর বারবারই বলিউডের নেপোটিজম বিতর্ক উঠেছে। সালমান খান, থেকে করণ জোহর, মহেশ ভাটের মত হেভিওয়েট দের নাম জড়িয়েছে। বারবার তদন্তের স্বার্থে মুম্বাই পুলিশ তলব করেছেন সুশান্তের এই সময় প্রেমিকা রিয়া চক্রবর্তী কে! রিয়া পুলিশ কে বলেছেন সুশান্তের হতাশার কথা ,মানসিক অবসাদের কথা! কিন্তু এই সকল জল্পনা-কল্পনার ঊর্ধ্বে গিয়ে সত্য হয়ে রয়ে গেলো‌ তার অকালে চলে যাওয়া! পড়ে রইল শুধু তার স্মৃতি।

অস্বাভাবিক ভাবে তার এই মৃত্যু আজও আমরা মেনে নিতে পারছিনা। সুশান্ত সিং রাজপুত এর মৃত্যুর পর বলিউডের নেপোটিজম বিতর্ক সামনে এসেছে। বলিউড ইন্ডাস্ট্রির সালমান খান ,করণ জহরের মত হেভি ওয়েট দের নাম জড়িয়ে গেছে নেপোটিজমের সাথে। নেটিজেনরাও বলিউডের এই সকল হেভিওয়েটদের ওপর নিজেদের ক্ষোভ বিদ্বেষ উগরে দিয়েছেন।সেই সঙ্গে সোশ্যাল মিডিয়ায় আরো একটি রব উঠেছে -#বয়কট স্টার কিড। এই রব হয়তো একটা সময় থিতিয়ে যাবে, পরিস্থিতি ও স্বাভাবিক হয়ে যাবে শুধু ফিরে আসবেন না বছর চৌত্রিশের সুশান্ত!

সুশান্ত সিং রাজপুতের পছন্দের বিষয় ছিল মহাকাশ জগৎ ও বিজ্ঞান। লক্ষাধিক টাকার টেলিস্কোপ দিয়ে তিনি রাতের আকাশের তারা দেখতেন। ভালোবাসতেন ক্রিকেট খেলতে। মহেন্দ্র সিং ধোনির বায়োপিকে তিনি এমন অসাধারণ অভিনয় করেন যে সিনেমা দেখতে দেখতে আমরা ভুলেই গিয়েছিলাম যিনি অভিনয় করছেন তিনি সুশান্ত! মনে হচ্ছিল যেন ধোনিই তার বায়োপিকে অভিনয় করছেন!এর পাশাপাশি সুশান্ত ব‌ই পড়তেও ভীষণ ভালোবাসতেন। সব সময় তার কাছে একটা বা দুটো বই থাকত‌ই। গ্ল্যামার জগতে এসেও তিনি যে তার বুদ্ধিবৃত্তিকে বাঁচিয়ে রেখেছেন তা তার বিজ্ঞানের প্রতি অগাধ জ্ঞান দেখলেই বোঝা যেত। আর অভিনয় ছিল তার জীবন।

এসবের পাশাপাশি সুশান্ত ছিলেন একজন বড় মনের মানুষ। লকডাউন এ রাস্তার কুকুরদের জন্য কাজ করেছেন, গরীব দুস্থ মানুষকে সাহায্য করেছেন। অহং শূণ্য মনোভাব ছিলো তার ,তাই সহজ ভাবেই মিশে যেতে পারতেন বেলুন বিক্রেতা দের সাথে ও। তার ইচ্ছা ছিলো গরীব মেধাবীদের জন্য কিছু করার। সুশান্তের সেই ইচ্ছাকে সম্মান জানিয়েই তার পরিবার সুশান্ত নামে এবার একটি ফাউন্ডেশন খুলবেন।

হ্যাঁ সুশান্তের পরিবার ঠিক করেছেন ‘সুশান্ত সিং রাজপুত ফাউন্ডেশন’ নামে একটি সংস্থা খুলবেন এই সংস্থায় সিনেমা, ক্রিকেট ,বিজ্ঞান জগতের গরিব প্রতিভাদের সাহায্য করা হবে।এর পাশাপাশি সুশান্তের পরিবার ঠিক করেছেন যে সুশান্ত স্মৃতির উদ্দেশ্যে ও ভক্তদের দর্শনের জন্য পাটনাতে যে বাড়িতে সুশান্ত ছেলেবেলা কাটিয়েছেন সেই বাড়িটিকে স্মৃতিসৌধ রূপে পরিণত করা হবে।সেখানে সুশান্তের ব্যবহার করা নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিস ,বিজ্ঞানের যাবতীয় ব‌ই , টেলিস্কোপ, গিটার ও খেলার সামগ্রী রাখা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here